ডা. আলমগীর মতি: ‘ত্রিকটু’ একটি সংস্কৃত শব্দ, যার মানে হলো তিন কটুর মিশ্রণ। আয়ুর্বেদ শাস্ত্রে ‘ত্রিকটু’ বলতে তিনটি ঝাঁঝালো বা কটু স্বাদযুক্ত ভেষজের মিশ্রণকে বোঝানো হয়। আর এ ভেষজ তিনটি হলো গোলমরিচ, পিপুল ও আদা। বহু প্রাচীন তথা হাজার বছরের পুরনো ‘আয়ুর্বেদিক মেটারিকা মেডিকো’ গ্রন্থে ত্রিকটুর ভেষজ তিনটির বিবিধ ব্যবহারের উল্লেখ পাওয়া যায়। আয়ুর্বেদ শাস্ত্রে বিভিন্ন রোগের চিকিৎসায় এবং অসংখ্য ওষুধ তৈরিতে ত্রিকটু ব্যবহার করা হয়। আয়ুর্বেদিক ওষুধের ওপর পরিচালিত এক সমীক্ষায় দেখা যায়, প্রায় ২১০টি বা তারও বেশি ওষুধ তৈরিতে ত্রিকটু বা এর উপাদান ভেষজের (গোলমরিচ, পিপুল ও আদা) ব্যবহার হয়। পিপুল Piperaceae পরিবারভুক্ত এক প্রকার সুগন্ধি লতা জাতীয় গাছ। এর বৈজ্ঞানিক নাম (Piper longum)। এর ভেষজ গুণসম্পন্ন ফল আকারে ছোট এবং কালচে লাল বর্ণের হয়ে থাকে। আয়ুর্বেদ শাস্ত্রে এ গাছের ফলের প্রকৃতি ঝাঁঝালো, উষ্ণ ও হালকা উল্লেখ করা হয়েছে। এটি হজমশক্তি বৃদ্ধিকারক, ক্ষুধা বৃদ্ধিকারক, কাম-উদ্দীপক এবং টনিকের গুণসম্পন্ন। তাই কাশি, শ্বাসকষ্ট, কুষ্ঠ, যক্ষ্মা, ডায়াবেটিস, পেট ব্যথা, বদহজম, অর্শ, চর্মরোগ, এনিমিয়া, দীর্ঘকালীন জ্বর, টাইফয়েড, ক্ষুধামন্দা এবং আন্ত্রিক পরজীবীর চিকিৎসায় এর ফল ব্যবহার করা হয়। সাম্প্রতিককালে পরিচালিত এক গবেষণায় খুবই চমকপ্রদ তথ্য আবিষ্কৃত হয়। গবেষণায় প্রমাণ করা হয় যে, পিপুল শিশুদের অ্যাজমাজনিত শ্বাসকষ্ট কমায় এবং বিষক্রিয়ার ফলে ধ্বংসপ্রাপ্ত লিভার বা কলিজার হেপাটিক কোষসমূহের পুনরুৎপাদনের মাধ্যমে লিভারকে সুস্থ করে।

bd-pratidin.com

টি মন্তব্য

মন্তব্য বন্ধ

Note: All are Not copyrighted , Some post are collected from internet. || বিঃদ্রঃ সকল পোস্ট বিনোদন প্লাসের নিজস্ব লেখা নয়। কিছু ইন্টারনেট থেকে সংগ্রহীত ।