অনলাইন ইওর হেল্‌থ রিপোর্টঃ ১০০ বছরের বৃদ্ধার হার্টে সফলভাবে রিং বসানোর বিরল রেকর্ড গড়লেন বাংলাদেশের চিকিৎসকরা। বাগেরহাটের মোল্লাহাটস্থ ১০০ বছরের কুলসুম বেগমকে গত ১৮ মে তার ৭৫ বছরের মেয়ে খুলনার ফর্টিস এসকর্ট হার্ট ইনস্টিটিউটে মুমুর্ষূ ও অচেতন অবস্থায় নিয়ে এলে তাকে তৎক্ষনাত ভর্তি করানো হয় হাসপাতালের করোনারি কেয়ার ইউনিট সিসিউতে । ইসিজিতে তার হার্ট এটাক (ইনফিরিওরএমআই) এবং হার্ট ব্লক ধরা পড়ে। পরবর্তীতে এনজিওগ্রাম করে বৃদ্ধার হার্টের রক্তনালীতে ব্লক ধরা পড়ে। হাসপাতালের সিনিয়র কনসালট্যান্ট ডা. হাসনাইন  রোগীর আত্মীয়-স্বজনের সাথে পরামর্শ করে জরুরি ভিত্তিতে বুকে রিং পড়ানো বা এনজিওপ্লাস্টির সিদ্ধান্ত নেন। প্রায়৯০ মিঃ সফল প্রচেষ্টায় ডা . হাসনাইন এ অসাধ্য সাধন করতে সমর্থ হোন। রোগী বর্তমানে সুস্থ আছেন । উঠে বসে আত্মীয় স্বজনের সাথে কুশল বিনিময় করছেন। এ প্রসঙ্গে আলাপকালে ডা. হাসনাইন জানান রিং বসানোর তাৎক্ষনিক সিদ্ধান্ত নিলেও সমগ্র প্রক্রিয়াটি অত্যন্ত ঝুকিপূর্ন ছিলো। । কেননা রোগীর বয়স তো বটেই এছাড়া রোগীর শারীরিক অবস্থা মোটেও রিং বসানোর অনুকূলে ছিলোনা রোগীকে প্রাথমিক ভাবে জরুরি ভিত্তিতে জমাট রক্ত তরল করণের ওষুধ (থ্রম্বোলাইটিক এজেন্ট) ও সাময়িক পেস মেকার বসিয়ে একটু সুস্থ করে রিং বসানোর কাজটি করা হয়। চিকিৎসকরা জানান বাংলাদেশ তো বটেই দক্ষিন পূর্ব এশিয়ায় এটি এযাবতকালের অধিক বয়স্ক মানুষের শরীরে রিং স্থাপনের বিরল রেকর্ড। এনজিওপ্লাস্টির সময় ডা. হাসনাইনের সহযোগী ছিলেন ডা. আব্দুল্লাহ মন্জুর, ডা. মাহবুবুল হক প্রমুখ।

টি মন্তব্য

মন্তব্য বন্ধ

Note: All are Not copyrighted , Some post are collected from internet. || বিঃদ্রঃ সকল পোস্ট বিনোদন প্লাসের নিজস্ব লেখা নয়। কিছু ইন্টারনেট থেকে সংগ্রহীত ।