সৌন্দর্য্যের পারদ আরও খানিকটা চড়াতে মহিলাদের অন্যতম প্রিয় জিনিস হাই হিল জুতো৷ ওয়েস্টার্ন হোক বা ইন্ডিয়ান আজকাল যেকোন পোষাকই হিল জুতো ছাড়া একেবারে বেমানান৷ তবে চিকিৎসকেরা বলছে , হাই হিলে হাই রিস্ক। সৌন্দর্য বাড়াতে বেশি উঁচু হিল পরলে হাঁটুর ক্ষতি হতে পারে।woman-with-tired-feet-with-heels

হিল জুতোয় সাময়িক উচ্চতা হয় তো বাড়বে, কিন্তু ভবিষ্যতে চিরকালের জন্য খুঁড়িয়ে হাঁটতে হতে পারে। অস্থি বিশেষজ্ঞরা জানাচ্ছেন, তাদের কাছে এখন আগের চেয়ে অনেক বেশি সংখ্যায় অল্পবয়সী রোগী আসছেন। তাদের অনেকেই আসছেন গোড়ালি বা হাঁটুতে ব্যথা নিয়ে। দেখা যাচ্ছে, সব অসুবিধার মূলেই রয়েছে হিল জুতোর অবদান। অস্বাভাবিক উঁচু হিল পরায় গোড়ালি উঁচু হয়ে থাকে,  অনিয়ন্ত্রিতভাবে এদিক ওদিক বেঁকে যায়। ফলে হাঁটুতে অস্বাভাবিক চাপ পড়ে। এতে ক্ষয়ে যায় হাঁটুর মালাইচাকির পেছনের কার্টিলেজ ভতিগ্রস্থ হয়। এমনকি অস্টিও-আর্থ্রাইটিসও দেখা দিতে পারে।

‘ইউনিভার্সিটি অব ক্যালিফোর্নিয়া’র অস্থিরোগ বিশেষজ্ঞদের কথায়, গোড়ালি, হাঁটু ও কোমর ঠিক রাখতে মেয়েদের জন্য পাম্পু শু বা ব্যাকস্ট্র্যাপ দেওয়া কম হিলের জুতা সবচেয়ে ভালো। তারা আরও জানিয়েছেন, হিল পরার ইচ্ছা হতেই পারে, তবে তার জন্য একটু সতর্ক থাকা দরকার। যেখানে অল্প হাঁটতে হবে, সেখানে উঁচু হিল পরা যেতে পারে। কিন্তু প্রতিদিনের জীবনে হাঁটাহাঁটির ক্ষেত্রে সামান্য উঁচু বা ফ্ল্যাট জুতোই নিরাপদ। কারণ শারীরিক সুস্থতা না থাকলে সৌন্দর্য দিয়ে লাভের লাভ কিছুই হবে না। সুতরাং হাই হিল ব্যবহারে সাবধান৷

টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Note: All are Not copyrighted , Some post are collected from internet. || বিঃদ্রঃ সকল পোস্ট বিনোদন প্লাসের নিজস্ব লেখা নয়। কিছু ইন্টারনেট থেকে সংগ্রহীত ।