এখন শীতের বাজার সবজিতে ভরপুর।এসব সবজির কয়েকটি গুণাগুণ তুলে ধরা হল।টমেটো : যারা সপ্তাহে অন্তত ৪ বার টমেটো খায় তাদের প্রোস্টেট ক্যান্সারসহ মূত্রথলি, অগ্ন্যাশয় ও খাদ্যনালীর ক্যান্সারের ঝুঁকি ২০ ভাগ কমে যায়। আর সপ্তাহে ১০ বার খেলে ঝুঁকি ৫০ ভাগ কমে আসে। তবে এ উপকার পেতে হলে তারা পাকা টমেটো এবং রান্না করা কিংবা সস করা টমেটো খেতে হয়। ফুলকপি ও মটরশুঁটি : হাড়ের গঠন, মাংসপেশির সঙ্কোচনজনিত ব্যথা দূরীকরণে আর রক্ত তৈরির
সাহায্য করে। গাজর : গাজর ত্বক ও চুলকে সূর্যরশ্মির ক্ষতিকর প্রভাব থেকে রক্ষা করে। গাজর মহিলাদের ছত্রাক সংক্রমণের ঝুঁকি কমায়। চোখের ছানি,
রাতকানা, হৃদরোগসহ ক্যান্সার প্রতিরোধে গাজর অগ্রণী ভূমিকা পালন করে। সিম ও ঢেঁড়স : সিম ও ঢেঁড়সের মধ্যে অন্যান্য সবজির মতো পুষ্টি ও উপাদান এবং ভিটামিন রয়েছে। তবে সিম ও ঢেঁড়সে রয়েছে প্রচুর ক্যালসিয়াম। ধনিয়া ও লেটুস : এই দুটি পাতাই সহজে কাঁচা অবস্থায় খাওয়া যায়। ফলে প্রকৃত পুষ্টিগুণ প্রায় পুরোটাই এ ক্ষেত্রে বজায় থাকে।winter-vegetable

অনান্য সবজি ও শাকপাতা: ভিটামিন- এ লিভারে ছয়মাস পর্যন্ত সঞ্চিত থাকে বলে শীতের সময় নিয়মিত শাকসবজি খেলে তা বছরের বাকি সময়ের ভিটামিন- এর
চাহিদা পূরণে সক্ষম হতে পারে। এতে থাকে প্রচুর পরিমাণ এন্টি অক্সিডেন্ট উপাদান, যা ত্বকের
বার্ধক্যরোধে ভূমিকা রাখে। এছাড়া হৃদরোগ প্রতিরোধে সহায়ক। খাদ্যনালীর ক্যান্সারসহ বিভিন্ন ক্যান্সার প্রতিরোধে কার্যকর ভূমিকা পালন করে।

টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Note: All are Not copyrighted , Some post are collected from internet. || বিঃদ্রঃ সকল পোস্ট বিনোদন প্লাসের নিজস্ব লেখা নয়। কিছু ইন্টারনেট থেকে সংগ্রহীত ।