লম্বা মহিলাদের মেনোপজ পরবর্তী সময়ে ক্যান্সারের সম্ভাবনা রয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রের নিউ ইয়র্কের অ্যালবার্ট আইনস্টাইন বিশ্ববিদ্যালয়ের রোগবিস্তার ও জনস্বাস্থ্য বিভাগের জেষ্ঠ্য অধ্যাপক জিওফ্রে কাবাত ও তার দলের এক অনুসন্ধানে এমনটা তথ্য উঠে এসেছে।tall women

গবেষণায় উঠে এসেছে অধিক উচ্চতার নারীরা স্তন, কোলন, কিডনি, মলদ্বার, এনডোমেট্রিয়ামের ক্যানসারে আক্রান্ত হতে পারেন। পাশাপাশি মেলোমা ও মেলানোমাও আক্রান্ত হতে পারে। এ ব্যাপারে গবেষণারত দলটিও বেশ অবাকই হয়েছে যে বেশির ভাগ লম্বা মহিলারাই ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়েছেন।

কাবাত এ বিষয়ে ব্যাখ্যা করেছেন, বর্ধনের ফলাফল হচ্ছে ক্যানসার। সুতরাং এ অর্থে হরমোন বা অন্যান্য দেহ বর্ধন বান্ধব উপাদানগুলো শারীরিক বৃদ্ধির পাশাপাশি ক্যান্সার হওয়ার ঝূঁকিও প্রভাবিত করে।

গবেষণায় কাবাত এবং তার দল ওমেন’স হেলথ ইনিশিয়েটিভের উপাত্ত ব্যবহার করেছেন। গবেষণা সংগঠনটি ১৯৯৩ সাল থেকে ১৯৯৮ সাল পর্যন্ত ৫০ থেকে ৭৯ বছরের মহিলাদের সংগ্রহ করে। এরা সবাই মেনোপোজ পরবর্তী সময়কাল পার করছিলেন। দৈহিক কার্যক্রমসহ উচ্চতা, ওজন সব বিষয়ে এদের জিজ্ঞেস করা হয়। এখানে ধরা পড়ে ক্যানসারে আক্রান্তে উচ্চতার অবদান।

এই সমীক্ষায় ধরা পড়ে প্রতি ১০ সেন্টিমিটার উচ্চতায় ক্যানসার আক্রান্তের সম্ভাবনা শতকরা ১৩ ভাগ করে বৃদ্ধি পায়। মেলানোমা, স্তন ও কোলন ক্যান্সারের ক্ষেত্রে এই সম্ভাবনা গিয়ে ঠেকে শতকরা ১৭ ভাগে। মলদ্বার, থাইরয়েড, কিডনি এবং ব্লাড ক্যান্সার হওয়ার সম্ভাবনা থাকে শতকরা ২৩ থেকে ২৯ ভাগ।

এই গবেষণাটি ক্যানসার এপিডেমিওলোজি, বায়োমেকারস অ্যান্ড প্রিভেনশন এবং আমেরিকান অ্যাসোসিয়েশন ফর ক্যান্সার রিসার্চের এক সাময়িকীতে প্রকাশিত হয়।

টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Note: All are Not copyrighted , Some post are collected from internet. || বিঃদ্রঃ সকল পোস্ট বিনোদন প্লাসের নিজস্ব লেখা নয়। কিছু ইন্টারনেট থেকে সংগ্রহীত ।