সুন্দরী সেক্রেটারির সঙ্গে বিয়েবহির্ভূত সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েন অনেকেই। তাই ইন্দোনেশিয়ার একজন গভর্নর তার অফিসের পুরুষ কর্মকর্তাদের নারী সেক্রেটারি বাদ দিয়ে পুরুষ সেক্রেটারি নিয়োগ করার আদেশ দিয়েছেন।

ইন্দোনেশিয়ার নর্দার্ন সুলায়েসি দ্বীপের গোরনতালো প্রদেশের গভর্নর রাসলি হাবিবি সরকারি অফিসগুলোর বড় কর্মকর্তাদের জন্য এই আদেশ জারি করেছেন।secretary

গভর্নর হাবিবি বলেন, কর্মকর্তারা সুন্দরী সেক্রিটারির সঙ্গে প্রেমে জড়িয়ে পড়ায় কাজে বিঘ্ন ঘটছে। তিনি বলেন, ‘আমি অভিযোগ পেয়েছি যে, অনেক বিভাগের প্রধানরা শুধু সেক্রেটারিদের নিয়েই পড়ে থাকেন। তারা সেক্রেটারিদের তাদের স্ত্রীদের চেয়েও সুনজরে দেখেন। সরকারি সফরে গেলে তারা সেক্রেটারির জন্য উপহার নিয়ে আসেন কিন্তু স্ত্রীদের জন্য আনেন না কিছুই।

তিনি আরও বলেন, এই ধরনের কর্মকাণ্ড বন্ধ করার লক্ষ্যে তিনি ‘আদেশ জারি’ করেছেন যেন তারা নারী সেক্রেটারির জায়গায় পুরুষ সহকারী নিয়োগ দেন। আর নারী সহকারী যদি প্রয়োজন পড়েই তাহলে তাকে হতে হবে বয়স্ক, যাদের প্রতি পুরুষরা আকৃষ্ট হয় না।

ইন্দোনেশিয়ার এই প্রদেশটিতে অন্তত ৫০ জন কর্মকর্তার নারী সেক্রেটারি রয়েছেন। গভর্নর হাবিবি বলেন, এই নির্দেশ পালন না করলে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে। গত বছর রাসলি হাবিবির প্রশাসন প্রায় ৩২০০ চাকুরের মাসিক বেতন তাদের স্ত্রীদের অ্যাকাউন্টে পাঠানোর নিয়ম চালু করেছিলেন, যেন এসব পুরুষ স্ত্রীদের প্রতি অনুগত থাকে এবং অন্য নারীর সঙ্গে সম্পর্কে না জড়ান। সূত্র : হেরাল্ড সান ও ইয়াহু নিউজ।

টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Note: All are Not copyrighted , Some post are collected from internet. || বিঃদ্রঃ সকল পোস্ট বিনোদন প্লাসের নিজস্ব লেখা নয়। কিছু ইন্টারনেট থেকে সংগ্রহীত ।